ধর্ষণ, যৌন নিগ্রহের জন্য শাস্তি দেওয়া হোক নির্যাতিতাকেও, সুপ্রিম কোর্টে জনস্বার্থ মামলা

নয়াদিল্লি: ধর্ষণ, যৌন নিগ্রহ, পিছু নেওয়ার মত অপরাধে মেয়েদেরও শাস্তি দেওয়া হোক। এই মর্মে সুপ্রিম কোর্টে দাখিল হয়েছে একটি জনস্বার্থ মামলা। এতে বলা হয়েছে, এ ধরনের অপরাধে মহিলাদের মত পুরুষরাও একইভাবে নির্যাতিত হতে পারেন।

কিছুদিন আগে সুপ্রিম কোর্ট প্রশ্ন তোলে, ব্যভিচারের সাজা লিঙ্গ নিরপেক্ষ হতে পারে কিনা। সেই বিষয়টি তুলে ধরা হয়েছে এই মামলায়।

এখনকার আইন হল, যদি কোনও পুরুষ কোনও মহিলার বিরুদ্ধে এ ধরনের অপরাধের অভিযোগ করেন, তবে সেই মহিলার কোনও শাস্তি হয় না, কারণ ১৫৮ বছরের পুরনো ভারতীয় দণ্ডবিধির বিশ্বাস, মেয়েরা এ ধরনের কাজ করতে পারেন না।

জনস্বার্থ মামলাটি দায়ের করেছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ঋষি মালহোত্রা। তাঁর বক্তব্য, অপরাধের কোনও লিঙ্গ হয় না, আইনও লিঙ্গ নিরপেক্ষ। মহিলারাও একই কারণে অপরাধ করেন, যে কারণে করেন পুরুষরা। আইনের তাই অপরাধীর মধ্যে ভেদাভেদ করা উচিত নয়, যেই অপরাধ করুন, তিনিই আইন অনুযায়ী দোষী।

তিনি আরও বলেছেন, সাম্প্রতিক এক সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, ২২২ জন ভারতীয় পুরুষের মধ্যে ১৬.১ শতাংশ যৌনতায় লিপ্ত হতে বাধ্য হয়েছেন। মেয়েদের ধর্ষণ নিয়ে যেমন গবেষণা হয়, পুরুষদের ধর্ষণ নিয়ে তার এক শতাংশও হয় না। কিন্তু বহু পরিসংখ্যান বলছে, পুরুষরাও ধর্ষিত হন, আর তার সংখ্যা আমরা যতটা মনে করে থাকি তার থেকে অনেক বেশি।

দেখা গিয়েছে, বয়স, লিঙ্গ ও ভূগোলের বাধ্যবাধকতাকে না মেনেই হয় ধর্ষণ। তাই এ ধরনের অপরাধ লিপিবদ্ধ করতে ও জনসমক্ষে আনতে লিঙ্গ নিরপেক্ষ আইন সময়ের প্রয়োজন বলে মামলাটিতে দাবি করা হয়েছে।

Releated Post